পাবনায় কুপিয়ে জখমের ১১ দিন পর যুবকের মৃত্যু

0 ৮৮
পাবনা প্রতিনিধি: পাবনার সাঁথিয়ায় কুপিয়ে জখমের ১১ দিন পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেলেন রিপন নামের যুবক।  ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ২৩ জুলাই রবিবার ভোর সাড়ে চারটায় মারা যান রিপন(২৩)। তিনি উপজেলার ভুলবাড়িয়া ইউনিয়নের ভবানিপুর গ্রামের খোরশেদ মোল্লার ছেলে।
জানা যায়, পূর্ব বিরোধের জের ধরে গত ১২ জুলাই সকাল সাড়ে আটটার দিকে প্রতিবেশী রবিউলের ছেলে হৃদয়(২১)ধারালো হাসুয়া দিয়ে রিপনকে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে। তার চিৎকারে স্বজনরা এগিয়ে এলে হৃদয় পালিয়ে যায়। মুমূর্ষ অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে প্রথমে পাবনা পরে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা নেয়া হয়।
অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে অবস্থার অবনতি হলে পরে তাকে ঢাকা মেডিক্যালে কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রবিবার(২৩ জুলাই) ভোর সাড়ে চারটায় তার  মৃত্যু হয়। ঘটনার দিনই  রিপনের পিতা খোরশেদ মোল্লা বাদী হয়ে আতাইকুলা থানায় ছয়জনের নামে মামলা করেন।
মামলা নং ০৬। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা আতাইকুলা থানার ওসি (তদন্ত) আমিনুল ইসলাম মৃত্যর ঘটনা নিশ্চিত করে বলেন, ০১ নং আসামী হৃদয় ছাড়া অন্যরা আদালত থেকে জামিনে আছে। হৃদয় পলাতক রয়েছে,তাকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.